সোমবার, ২২শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৯ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, সকাল ৮:১৫

অভিযান চালিয়ে বাউফলে ১ লাখ টাকার অবৈধ জাল জব্দ।

ডেইলি ক্রাইম বার্তা ডেস্ক : ২২ দিনের অবরোধের প্রথম সপ্তাহে মা ইলিশ রক্ষায় বাউফলের কারখানা নদীতে ভোর নাগাদ অভিযান চালিয়ে প্রায় এক লাখ টাকার অবৈধ জাল জব্দ করে পুড়িয়ে দিয়েছে প্রশাসন। বাউফল উপজেলা মৎস্য অধিদপ্তর ও বাকেরগঞ্জ নৌ পুলিশের কোস্ট গার্ডদের যৌথ অভিযানে ওই জাল জব্দ করা হয়েছে। বুধবার (১৩ অক্টোবর) উপজেলার কাছিপাড়া ইউনিয়নের পশ্চিম কাছিপাড়া (গোপালিয়া) লঞ্চঘাটে এ জব্দকৃত জাল পুড়িয়ে দেয় প্রশাসন। অবৈধ জব্দকৃত জাল জনসম্মুখে পুড়িয়ে দেয়া হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন বাউফল মৎস্য অফিসের লিফ মোঃ ইমরান তালুকদার, কাছিপাড়া ইউনিয়নের ৪ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মো.মামুন, ইউপি দফাদার জাহাঙ্গীর আলম,চৌকিদার সুমনসহ স্থানীয় ব্যাক্তিবর্গ।
সংশ্লিষ্ট সূত্রে থেকে জানা গেছে, দেশের অন্যান্য নদীর মতোই বাউফলের কারখানা নদীটি মা ইলিশের অভয়ারণ্য হিসেবে চিহ্নিত করা রয়েছে। ২ থেকে ২৫ অক্টোবর পর্যন্ত এই অভয়ারণ্যে ইলিশের ডিম ছাড়ার সময়ে ইলিশ শিকার নিষিদ্ধসহ অবরোধ জারি করা হয়েছে।তবে কারখানা নদীটি বাউফল ও বাকেরগঞ্জ উপজেলার মাঝখানে অবস্থিত। দুই উপজেলার মৎস্য জেলেরাই মাছ ধরে থাকেন।
এ বিষয় বাউফল উপজেলা সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা মাহাবুব আলম তালুকদার জানান, কারখানা এই নদী এলাকা পাহাড়া দিতে প্রয়োজনীয় লোকবল ও নৌ-যানের অভাব রয়েছে। এরপরও আমার ইলিশ রক্ষায় দিন-রাত কাজ করে যাবো। বাকেরগঞ্জ উপজেলার কর্মকর্তাদের সঙ্গে আমার কথা হয়েছে, তারাও স্বাধ্যমতো অভিযানে সহযোগিতা করবে।
তিনি আরও বলেন, বাউফলে জেলেদের নিয়ে সভা করা হয়েছে এবং মৎস্য অধিদপ্তরের মাধ্যমে মাইকিং করা হয়েছে। কিন্তু এক শ্রেণির লোভী জেলে সরকারি নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ইলিশ শিকার করতে নদীতে জাল ফেলে লুকিয়ে থাকে। মা ইলিশ রক্ষায় আমাদের এই অভিযান অব্যহত থাকবে।
“এম.সাইদুর রহমান সংবাদদাতা বাউফল”