শনিবার, ২০শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৬ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, রাত ১২:৪২

করোনা সংক্রমণ স্পেনে দশ লাখ ছাড়িয়েছে।

ডেইলি ক্রাইম বার্তা ডেস্ক : স্পেনে করোনার সংক্রমণ ১০ লাখ ছাড়িয়েছে। বিবিসির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, পশ্চিম ইউরোপের কোনো দেশ হিসেবে স্পেনই এই সংখ্যা পার করল।
বুধবার দেশটিতে নতুন করে সংক্রমণের সংখ্যা ছিল ১৬ হাজার ৯৭৩। অপরদিকে ২৪ ঘণ্টায় করোনা সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে ১৫৬ জনের। ইউরোপের দেশগুলোতে করোনা সংক্রমণ নতুন করে বাড়তে শুরু করেছে। বেশিরভাগ দেশেই করোনার দ্বিতীয় ঢেউ শুরু হওয়ায় কর্তৃপক্ষ আবারও কড়াকড়ি আরোপ করেছে।
গত ৩১ ডিসেম্বর চীনের হুবেই প্রদেশের উহান শহরে প্রথম করোনা সংক্রমণ ধরা পড়ে। স্পেনে প্রথম করোনার প্রাদুর্ভাব ঘটে গত ৩১ জানুয়ারি। সরকারি হিসাব অনুযায়ী, দেশটিতে এখন পর্যন্ত মোট সংক্রমণ ১০ লাখ ৫ হাজার ২৯৫।
ওয়ার্ল্ডোমিটারের পরিসংখ্যান বলছে, স্পেনে এখন পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা ১০ লাখ ৪৬ হাজার ৬৪১। এর মধ্যে মারা গেছে ৩৪ হাজার ৩৬৬ জন। দেশটিতে আশঙ্কাজনক অবস্থায় রয়েছে ১ হাজার ৯৩০ জন।
এখন পর্যন্ত করোনা সংক্রমণ ও মৃত্যুতে শীর্ষে রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। ওয়ার্ল্ডোমিটারের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, করোনা সংক্রমণে ৫ম অবস্থানে স্পেন।
কয়েক মাস ধরেই স্পেনসহ ইউরোপের বিভিন্ন দেশে সংক্রমণ বাড়তে দেখা গেছে। করোনা মহামারি শুরুর প্রথম মাসেই স্পেনে ভয়াবহ বিপর্যয় দেখা দেয়।
করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে শুরু থেকেই কঠোর বিধি-নিষেধ জারি করেছে স্পেন। এমনকি দেশটিতে শিশুদের ঘরের বাইরে বের হওয়ার ওপরও নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়। গত আগস্টের শেষ দিকে দেশটিতে দৈনিক সংক্রমণ ছিল প্রায় ১০ হাজার। দেশটিতে এই সময়ের মধ্যে মৃত্যুর সংখ্যাও বেড়েছে। এমনকি হাসপাতালে রোগীর সংখ্যা ২০ শতাংশ বাড়তে দেখা গেছে।
করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পরবর্তী কি পদক্ষেপ নেওয়া হবে সে বিষয়ে আজ বৃহস্পতিবার আঞ্চলিক নেতাদের সঙ্গে বৈঠক করবেন দেশটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী। ইউরোপের অন্যান্য দেশ যেমন- আয়ারল্যান্ড, ইতালি, জার্মানি, যুক্তরাজ্যেও সংক্রমণ বেড়েই চলছে।