শুক্রবার, ১৯শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৬ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, রাত ১১:৪১

চার হুন্ডি ব্যবসায়ী আটক হয়েছে প্রায় ২ লাখ ইউএস ডলারসহ।

ডেইলি ক্রাইম বার্তা ডেস্ক : যশোর অঞ্চলে বেশ কয়েকটি হুন্ডি চোরাকারবারী চক্র দীর্ঘদিন যাবত চোরাচালানী কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছে। উক্ত চোরাচালানী কার্যক্রম প্রতিহত করার জন্য দীর্ঘদিন যাবত হুন্ডি, মাদক, চেরাচালান ও স্বর্ণ আটকের নিমিত্তে বিজিবি’র বিশেষ পরিকল্পনা অনুযায়ী গোয়েন্দা তৎপরতাসহ নিয়মিত অপারেশন পরিচালনা করা হচ্ছে।
এছাড়াও করোনাকালীন সময়ে চোরাকারবারীদের যেকোন তৎপরতা ও কর্মকান্ড রহিতকরনের লক্ষ্যে বিশেষ গোয়েন্দা তৎপরতা বৃদ্ধি ও অপারেশনাল কার্যক্রম পরিচালনা করা হচ্ছে। যার ফলশ্রুতিতে ২২ জানুয়ারি ২০২১ তারিখ ১১৫০ ঘটিকায় যশোর ব্যাটালিয়ন(৪৯ বিজিবি) এর অধিনায়ক, লেঃ কর্ণেল জনাব, মোঃ সেলিম রেজা, বিজিবিএম, পিএসসি গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারে যে, বিপুল পরিমান ইউএস ডলার পাচারের লক্ষে ০৪ জন পাচারকারী বেনাপোল হতে একটি লোকাল বাসযোগে যশোর হামিদপুর হতে ৫০০ গজ পূর্ব দিকে নেমে যশোর হতে ঢাকাগামী বাসে যাওয়ার জন্য অপেক্ষা করছে।
প্রাপ্ত সংবাদের ভিত্তিতে অধিনায়ক, যশোর ব্যাটালিয়নের এর নির্দেশক্রমে সহকারী পরিচালক জনাব, মোহাম্মদ ফারুক হোসেন এর নেতৃত্বে একটি বিশেষ অপারেশন পরিচালনা করা হয়। পাচারকারীরা বিজিবি’র উপস্থিতি টের পেয়ে পলায়নকালে বিজিবি দল তাদেরকে গ্রেফতার করে।
উক্ত সদস্যদের কোমরে বিশেষ কায়দায় লুকায়িত অবস্থায় ১৯ বান্ডিল প্রতিটিতে ১০ হাজার করে মোট ১,৯০,০০০ ইউএস ডলার আটক করা হয় যার আনুমানিক সিজার মূল্য ১,৬০,৭২,০০০/-(এক কোটি ষাট লক্ষ বাহাত্তর হাজার) টাকা। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আটককারীরা স্বীকার করেছে যে, তারা হুন্ডি ও স্বর্ণ চোরাকারবারীর সাথে দীর্ঘদিন যাবত জড়িত রয়েছে।
আটককৃত আসামীদের নামঃ ১। মোঃ মিঠু মন্ডল (২৭), পিতা- মোঃ সলেমান, গ্রাম-গাতিপাড়া, ডাকঘর ও থানা-বেনাপোল, জেলা-যশোর ২। মোঃ শহিদুল ইসলাম (২৩), পিতা-মোঃ জাকির হোসেন, গ্রাম-ছোট আচড়া, ডাকঘর ও থানা- বেনাপোল, জেলা-যশোর ৩। মোঃ সোহেল রানা (হযরত) (৪০), পিতা- মৃত- আবুল হোসেন, গ্রাম-ললিতাদাহ, ডাকঘর- বারিনগর বাজার, থানা ও জেলা- যশোর ৪। রাকিবুল হাসান সাগর (২০), পিতা- মোঃ তোরাব আলী, গ্রাম- নওদাগ্রাম, ডাকঘর ফুজারহাট, থানা ও জেলা- যশোর।
অত্র ব্যাটালিয়নের পক্ষ হতে মাদক, চোরাচালান, হুন্ডি ও স্বর্ণ পাচারের বিরুদ্ধে সীমান্তে সার্বক্ষনিক কঠোর নজরদারী রাখাসহ প্রয়োজন অনুযায়ী বিশেষ অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে। আটককৃত হুন্ডিসহ আসামীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন।
উল্লেখ্য, গত ২০২০ সালে অত্র ব্যাটালিয়ন কর্তৃক ১১৯,৮৮,০৮,২৬৪/- (একশত উনিশ কোটি আটাশি লক্ষ আট হাজার দুইশত চৌষট্টি) টাকা মূলের বিভিন্ন প্রকার চোরাচালানী মালামাল আটক করা হয়। তন্মধ্যে ৬,৮৭,৮১,৯৩১/- (ছয় কোটি সাতাশি লক্ষ একাশি হাজার নয়শত একত্রিশ) টাকা মূল্যের ইউএস ডলার/হুন্ডি আটক করতে সক্ষম হয়।